শিক্ষামন্ত্রীর স্ত্রীও ফেঁসে যাচ্ছেন

জাতীয় আর্টিকেল: শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন দুর্নীতি এবং অনিয়মের সঙ্গে জড়িয়ে পড়ছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদের স্ত্রী জোহরা জেসমিনের নাম। তার সঙ্গে অভিযুক্ত কর্মকর্তাদের নিবিড় যোগাযোগ ছিল বলে তদন্তকারী গোয়েন্দা কর্মকর্তারা নিশ্চিত হয়েছেন।

মন্ত্রীর ব্যক্তিগত কর্মকর্তা মোতালেব প্রায়ই মন্ত্রীর বাসায় যেতেন এবং মন্ত্রীর স্ত্রীর সঙ্গে কথা বলতেন বলেও তথ্য এসেছে গোয়েন্দাদের কাছে।

এর আগে মন্ত্রীর একজন সহকারী একান্ত সচিবের বিরুদ্ধেও দুর্নীতর অভিযোগ উঠেছিল। অব্যাহত অভিযোগের কারণে মন্ত্রী তাঁকে সরিয়ে দেন। ওই এপিএস মন্ত্রী পত্নীর বিশ্বস্ত ছিলেন বলেও অনুসন্ধানে জেনেছেন গোয়েন্দারা।

গোয়েন্দা সংস্থা ও দুর্নীতি দমন কমিশনের প্রাথমিক অনুসন্ধানে দেখা গেছে, শিক্ষামন্ত্রী নূরুল ইসলাম নাহিদের স্ত্রী মন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন বিষয়ে হস্তক্ষেপ করতেন। গত এক দেড় বছরে এই হস্তক্ষেপ বেড়েছিল। বদলী ও পদোন্নতির ক্ষেত্রে মন্ত্রী পত্নীর হস্তক্ষেপ সবচেয়ে বেশি ছিল।

দুর্নীতি দমন কমিশনের একটি সূত্র বলছে, মন্ত্রণালয়ের দুর্নীতিগ্রস্থ কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা তার প্রশ্রয় ও আনুকুল্য পেতো।

গোয়েন্দা সংস্থার একজন কর্মকর্তা বলেছেন, তাদের প্রাপ্ত তথ্যাদি আগামী দুই একদিনের মধ্যেই তারা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ে দেবেন। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্তের পরিপ্রেক্ষিতে পরবর্তী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *