বিন্দুর সংসার ভাঙা নিয়ে যা বললেন তার স্বামী

বিনোদন আর্টিকেল: বড় পর্দায় অল্প বিস্তর আর ছোট পর্দায় অনেক জনপ্রিয়তাকে তুচ্ছ করে আড়ালে গেছেন প্রায় দুই বছর হতে চললো। উদ্দেশ্য, সংসার ধর্ম পালন। তাই তার দেখা নেই কোথাও।

ভক্তরা তাকে মিস করে নানা সময় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তাকে ফিরে আসার আহ্বান জানিয়েছেন। তবে কবে তিনি ফিরবেন বা আদৌ ফিরবেন কী না সেটা বলা মুশকিল। বলা হচ্ছে লাক্স তারকা আফসান আরা বিন্দুর কথা।

২০১৪ সালের ২৪ অক্টোবর রাতে বিন্দু বিয়ে বন্ধনে আবদ্ধ হন ব্যবসায়ী আসিফ সালাহউদ্দিন মালিকের সঙ্গে। এরপর থেকেই রয়েছেন আড়ালে। ২০১৬ সালে ১৪ ফেব্রুয়ারিতে তিনি হঠাৎ দেখা দেন নিজের বিবাহোত্তর সংবর্ধনার আয়োজনে। এরপর সর্বশেষ তাকে রাজধানীর আর্মি গলফ ক্লাবে দেখা গিয়েছিলো গেল বছরের পহেলা বৈশাখের আয়োজনে।

কিন্তু এই নিভৃতচারীর দিনযাপনেও হঠাৎ করে আলোচনায় এলেন বিন্দু। কারণ, ডিভোর্স। গেল সপ্তাহ থেকেই শোনা যাচ্ছে সংসার ভেঙ্গেছে এই তারকার। প্রায় এক বছর ধরে স্বামীকে ছেড়ে তিনি আলাদা থাকছেন। দূরত্ব বেড়েছে শ্বশুরবাড়ির সঙ্গে।

মাঝখানে প্রচার হয়েছে বিন্দুর স্বামীর সঙ্গে এক অভিনেত্রীর প্রেম রয়েছে বলেই বিন্দু বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন। তবে এই খবরকে ভিত্তিহীন বলে দাবি করলেন বিন্দুর স্বামী আসিফ সালাহউদ্দিন মালিক। তিনি বলেন, ‘কারো সঙ্গেই আমার কোনো প্রেমের সম্পর্ক নেই। এইসব মুখরোচক খবর নিয়ে আমার কোনো মাথা ব্যাথাও নেই।’

তবে সংসার নিয়ে কোনো মন্তব্যই করতে চাননি আসিফ। এক বছর ধরে আপনি আর বিন্দু আলাদা থাকছেন, আপনাদের বিচ্ছেদের খবর ছড়িয়েছে, এটি সত্যি? এমন প্রশ্নের জবাবে আসিফ বলেন, ‘আমি এইসব নিয়ে কোনো কথা বলবো না। নো কমেন্টস।’ এই বলে ফোন রেখে দিতে উদ্যত হন তিনি।

বিন্দু এখন কোথায় আছেন, তার সঙ্গে যোগাযোগের উপায় জানতে চাইলেও তিনি বলেন, ‘আমি কিছুই বলতে পারবো না। নো কমেন্টস। পারলে বিন্দুর সঙ্গে যোগাযোগ করুন। আমি মিডিয়া এড়িয়ে চলি।’

এদিকে দিনে দিনে প্রকট হচ্ছে বিন্দুর সংসার ভাঙার খবর। ছোট পর্দার অনেকেই বলছেন, চলতি বছরেই হয়তো প্রকাশ্যে আসবেন বিন্দু। নতুন করে হয়তো শুরু করবেন শোবিজের কাজও। তবে তার সংসার ভাঙা নিয়ে কেউই স্পষ্ট কোনো প্রমাণ দিতে পারছেন না।

তার স্বামী আসিফের বক্তব্যের মতোই থেকে যাচ্ছে ধোঁয়াশা। তবে সবারই প্রত্যাশা, যে সংসারের টানে উজ্জ্বল ক্যারিয়ার রেখে নিজেকে আড়ালে নিয়ে গিয়েছিলেন বিন্দু সেই সংসারে যেন সুখের বাতি জ্বলে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *